Friday, May 20, 2022
Home ঝিনাইদহ ঝিনাইদহের কালীগঞ্জের মেয়র মানবিক দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন জনগনের জন্য

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জের মেয়র মানবিক দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন জনগনের জন্য

ঝিনাইদহ অফিস- ঝিনাইদহের কালীগঞ্জের বর্তমান মেয়র মোঃ আশরাফুল আলম ব্যক্তি উদ্যোগে পৌরসভা থেকে প্রাপ্ত ভাতার টাকা জমিয়ে ৮৬ শতক ভাগাড় ক্রয় করে পৌরসভার নামে রেজিষ্ট্রি করলেন। তার এই দানের কারনে পৌরসভার বর্জ্য ব্যবস্থাপনায় নিজস্ব জায়গা হওয়ার ঘটনায় পৌরবাসি তাকে সাধুবাদ জানিয়েছেন।

পৌরসভার তথ্যমতে, পৌরসভা প্রতিষ্ঠার পর প্রায় প্রতিবছরই বার্ষিক বাজেটে বর্জ্য ব্যবস্থাপনায় ভাগাড় (জমি) কিনতে বরাদ্ধ থাকতো। বছর শেষে সেই বরাদ্ধ খরচ হয়ে যেতো অন্য খাতে। অর্থ সংকটে ভাগাড় কেনা সম্ভব হয়নি ২৯ বছরেরও। নির্ধারিত স্থান না থাকার কারনে মানুষের পোহাতে হত ভোগান্তিতে। এবার কালীগঞ্জ পৌরসভার ঈশ^রবা মৌজায় বসতী এলাকার বাইরে মাঠের মধ্যে ক্রয়কৃত ওই জমিতে ইতিমধ্যে ময়লা ফেলা শুরু করে পৌরসভা কর্তৃপক্ষ


পৌরসভার মেয়র মোঃ আশরাফুল আলম জানান, পৌরসভার মেয়র মোঃ মকছেদ আলী ২০১৮ সালের সেপ্টেম্বর মৃত্যুবরণ করলে তিনি ভারপ্রাপ্ত মেয়রের দায়িত্ব পালন করেন। এরপর মেয়র পদে ভোট হলে তিনি আওয়ামীলীগের প্রার্থী হয়ে নির্বাচিত হন। ২০১৯ সালের ২৫ মার্চ পূর্ণাঙ্গ মেয়র হিসেবে দায়িত্ব নেন। তিনি বলেন, স্থানীয় একজন নাগরিক ও পৌরসভার নির্বাচিত জনপ্রতিনিধি হিসেবে তিনি দেখেছেন পৌরসভার একটা বড় সমস্যা বর্জ্য ব্যবস্থাপনা। পৌরসভার নিজস্ব কোনো জায়গা নেই। প্রায় প্রতিবছরই বাজেটে এই জায়গা ক্রয়ের জন্য বরাদ্ধ রাখা হচ্ছে। কিন্তু পৌরসভার আর্থিক সংকট থাকায় সেই টাকা অন্য খাতে খরচ হয়, জায়গা ক্রয় হয় না।


তিনি বলেন, এই অবস্থায় শহরের নানা স্থানে অন্যের জমিতে পৌরসভা কর্র্তৃপক্ষ ময়লা ফেলে আসছিল। এ নিয়ে অনেক সময় বাঁধাও এসেছে। তাছাড়া দূর্গন্ধ থাকতো এলাকাটিতে। এই অবস্থা দেখে তিনি সিদ্ধান্ত নেন পৌরসবার মেয়র হিসেবে যে টাকা পাবেন তা জমিয়ে তিনি ময়লা ফেলা জায়গা ক্রয় করবেন। সেই চিন্তা থেকে তিনি ভাতার টাকা জমিয়ে জমি ক্রয় করেছেন। তিনি আরও জানান, ৮ হাজার ৫ শত টাকা শতক করে ৮৬ শতক জমি ক্রযকরে পৌরসভার নামে রেজিষ্টি ্রকরেছেন। এখন থেকে আর মানুষের ময়লা আর্বজনা নিয়ে পৌরবাসির কোন চিন্তা নেই বলে জানান।


এ বিষয়ে পৌর এলাকার সচেতন নাগরিক জামির হোসেন ও টিপু সুলতান জানান, দীর্ঘদিন পরে হলেও জনকল্যানে কাজ করার মত আমরা একটি মেয়র পেয়েছি। তিনি পৌরবাসির কথা চিন্তা করে নিজ টাকা খরচ করে যে সেবা দিয়েছেন সেটি স্বরণীয় হয়ে থাকবে।

- Advertisment -

সব খরব

মিয়ানমারের জান্তাকে অস্ত্র সরবরাহ করছে চীন, রাশিয়া ও সার্বিয়া

সমীকরণ ডেস্ক- মিয়ানমারের জান্তাকে অস্ত্র সরবরাহ করছে চীন, রাশিয়া ও সার্বিয়া। গত বছরের অভ্যুত্থানের পর থেকে মিয়ানমারের জান্তাকে অস্ত্র সরবরাহ করছে চীন,...

চলতি বছরেই ৬২ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে সপ্তাহে দুই দিন ছুটি

সমীকরণ প্রতিবেদক - নতুন কারিকুলাম বাস্তবায়নে পাইলটিং কার্যক্রম শুরু হয়েছে। এর আওতায় দেশের ৬২ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ষষ্ঠ শ্রেণির শিক্ষার্থীরা চলতি বছর সপ্তাহে দুই...

বাংলাদেশ-ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর বৈঠকে তিস্তা নিয়ে আলোচনা

সমীকরণ প্রতিবেদক- প্যারিসে বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেনের সঙ্গে বৈঠকে ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিসে বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী...

মাঘের শীতে কাঁপছে উত্তরাঞ্চলের মানুষ

সমিকরণ প্রতিনিধি- মাঘের শীতে কাঁপছে দিনাজপুরসহ উত্তরাঞ্চলের মানুষ। তীব্র শীত আর কনকনে ঠাণ্ডা বাতাসে এ অঞ্চলের মানুষের জবুথবু অবস্থা। আগুন জ্বালিয়ে শীত...